সংবাদ শিরোনাম :

কাতারের হাসপাতাল মর্গে ৬ দিন ধরে পড়ে আছে বড়লেখার এক রেমিটেন্স যোদ্ধার লাশ!

রিপোর্টার
  • আপডেট সময় বুধবার, ১০ এপ্রিল, ২০১৯
  • ১২৭ যত সময় দেখা হয়েছে


কাতারে গত ০৩ এপ্রিল এপেন্টিসাইট এর ব্যাথায় হাসপাতাল নেওয়ার পথে এক প্রবাসীর মৃত্যু হয়েছে। মৃত ব্যক্তির নাম আজিজুর রহমান (৪৮)বাড়ি মৌলভীবাজার জেলার বড়লেখা উপজেলার সৎপুর গ্রামে। চার কন্যা ও এক পুত্র সন্তানের জনকমৃত আজিজুর রহমান ২০১৪ সালে কাতার এসেছিলেন ছয় লক্ষ টাকায় ভিসা ক্রয় করে জীবন-জীবিকার টানে কিন্তু ভাগ্যের নির্মম পরিহাসে মেডিকেল সংক্রান্ত জটিলতায় উনার ভিসা লাগেনি। এত টাকা খরচ করে প্রবাসে এসে অবশেষে নিরুপায় হয়ে তিনি আর দেশে ফিরে যাননি অবৈধ অবস্থায় কাতারে থেকে যান।

গত ৩ এপ্রিল হঠাৎ করে এপেন্টিসাইট এর ব্যাথায় উনি অসুস্থ হয়ে পড়লে ভিসা না থাকায় পাশে থাকা কেউ উনাকে হাসপাতালে নিয়ে যাননি পরে উনার ভাই সংবাদ পেয়ে এসে হাসপাতালে নিয়ে যান ততক্ষণে অনেক দেরি হওয়াতে কর্তব্যরত চিকিৎসক উনাকে মৃত ঘোষণা করেন।বর্তমানে উনার লাশ আলখোর হামাদ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।লাশ দেশে পাঠাতে অনেক টাকার প্রয়োজন, মেয়াদোত্তীর্ণ পাসপোর্ট, সিআইডির ৬ হাজার রিয়াল জরিমানা,টিকেটসহ রয়েছে নানাধরণের আইনি প্রক্রিয়া।

এ বিষয়ে জালালাবাদ এসোসিয়েশান কাতার এর সভাপতি নজরুল ইসলাম এর সাথে মোবাইলে আলাপকালে তিনি জানান আমরা বিষয়টি ইতিপূর্বে অবগত হয়েছি আমরা সর্বাত্মক চেষ্টা করছি কিভাবে অতি দ্রুত লাশ দেশে পাঠানো যায়।তিনি সকল প্রবাসীদেরও আহবান জানান সবাই নিজনিজ অবস্থান থেকে যতটুকু পারেন লাশ দেশে পাঠানোর জন্য আর্থিক সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিতে।

পোস্টটি আপনার বন্ধুকে শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ
About Us | Privacy Policy | Term and Condition | Disclaimer |© All rights reserved © 2021 probashirnews.com