সংবাদ শিরোনাম :

ক্যারিয়ার ও অপুকে নিয়ে খোলামেলা কথা বললেন শাকিব

রিপোর্টার
  • আপডেট সময় শনিবার, ৩ মার্চ, ২০১৮
  • ১০৪ যত সময় দেখা হয়েছে

বাংলা চলচ্চিত্রে একছত্র আধিপত্য তার। তার ছবি মানেই হাউস ফুল। চলচ্চিত্রের মন্দা বাজারেও পরিচালক, প্রযোজকরা যেন তাকে নিয়ে সস্তি পান, বলছি শাকিব খানের কথা। দীর্ঘ দুই মাস দেশের বাইরে বেশ কয়েকটি ছবির শুটিং শেষ করে দেশে এসেই আবার ব্যস্ত হয়েছিলেন ‘চিটাগাইঙ্গা পোয়া-নোয়াখাইল্যা মাইয়া’ ছবির শুটিং নিয়ে। শুটিং এর এক ফাঁকে বিডি২৪ লাইভের সাথে কথা হয় সুপার স্টার শাকিব খানের। জানালেন তার নিজরে ক্যারিয়ার ও অপু বিশ্বাসের কথা।

বিডি২৪ লাইভ: যৌথ প্রযোজনার ‘ভাইজান এলো রে’ নামে সিনেমা চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন। সে বিষয়ে কিছু বলুন?
শাকিব খান: ‘ভাইজান এলো রে ’ ছবিটি আমার আর শ্রাবন্তী জুটির দ্বিতীয় ছবি। সিনেমাটি পরিচালনা করবেন জয়দীপ মুখার্জি। ছবিতে দ্বৈত চরিত্রে অভিনয় করব আমি। এতে পায়েল সরকারও রয়েছেন। আর জয়দীপের পরিচালনায় এটি আমার চতুর্থ ছবি। এর আগে ‘শিকারি’, ‘নবাব’, ‘চালবাজ’-এ একসঙ্গে কাজ করেছি আমরা।

বিডি২৪ লাইভ: ‘শিকারি’ কিংবা ‘নবাবের’ মত কি সাড়া জাগাতে পারবে ছবিটি?
শাকিব খান: শিকারিতে আমাকে আর শ্রাবন্তীকে দর্শক বেশ সাদরেই গ্রহণ করেছিলো। এই ছবিতেও আমার আবার জুটি বেঁধেছি। পাশাপাশি ছবিটির গল্পও বেশ চমৎকার। আশা করি দর্শক মহলে সাড়া ফেলবে।

বিডি২৪ লাইভ: সদ্য মুক্তি পেয়েছে আপনার অভিনীত ‘আমি নেতা হবো’চলচ্চিত্রটি। ছবিটি আলোচনায় থাকলেও শোনা যাচ্ছে তেমন সাড়া ফেলতে পারেনি। কারণ ছবিটির মেকিং এ কিছুটা দুর্বলতা ছিলো এ বিষয়ে আপনার বক্তব্য কি?
শাকিব খান: আমি যত দূর শুনেছি যে ছবি মুক্তির প্রথম সপ্তাহেই প্রযোজকের লগ্নি উঠে এসেছে। তবে হ্যাঁ, কিছু ঘাটতি ছিলো তবে এর পেছনে বেশ কিছু কারণ রয়েছে। আমরা যখন ছবির শুটিং শুরু করি তখন বেশ কিছু ঝামেলা চলছিলো আপনারা সবাই জানেন। সেই কারণে ছবিটি শেষ করাটাই মুখ্য ছিলো। সে কারণে কিছুটা ত্রুটি ছিলো।

বিডি২৪ লাইভ: প্রথম শিকারি ছবিতে অভিনয় করার পর আপনি এক সাক্ষাৎকারে বলেছিলেন যে বাংলা চলচ্চিত্র কারিগরি দিক থেকে পিছিয়ে আছে? এরপর বেশ কিছু দেশী ও যৌথ প্রযোজনার ছবিতে কাজ করেছেন। সেই অভিজ্ঞতার আলোকে বর্তমানে বাংলা চলচ্চিত্রের কতটুকু উন্নতি হয়েছে বলে মনে করেন?
শাকিব খান: হুম, আমি আগে থেকেই বলে আসছি আমার কেবল টেকনিক্যাল দিক থেকে পিছিয়ে আছি। এখন তো আমাদের লোকাল প্রোডাকশন খুবই কম হচ্ছে। তবে হ্যাঁ, ইদানিং বেশ কিছু চলচ্চিত্রে তরুণ নির্মাতারা টেকনিক্যাল বিষয়গুলো বেশ গুরুত্বের সাথে দেখছে।

বিডি২৪ লাইভ: বর্তমান ব্যস্ততা কেমন?
শাকিব খান: বর্তমানে বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্র নিয়ে দেশে ও কলকাতায় ব্যস্ত আছি। কলকাতা থেকে দেশে ফেরার পর বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রের প্রস্তাব এসেছে কিন্তু আমি সাফ না জানিয়ে দিয়েছি। কারণ এখন কোয়ানটিটি নয় কোয়ালিটি দেখতে হবে। আমি এখন সিদ্ধান্ত নিয়েছি, দরকার হলে বছরে এক থেকে দু’টি ছবি করব। দর্শকের কথা চিন্তা করেই আমি এখানে মনস্থির করেছি।

বিডি২৪ লাইভ: অপুর সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদের বিষয়ে আপনার সর্বশেষ সিদ্ধান্ত কি?
শাকিব খান: এসব নিয়ে অনেক হয়েছে। আর কিছুই বলতে চাই না। সিটি কর্পোরেশনের সালিশে আমার আইনজীবী আমার সিদ্ধান্তের কথা সাফ জানিয়ে দিয়েছে। যা ঘটেছে এসব এখন আমার কাছে শুধুই অতীত। অতীত নিয়ে ভেবে সময় নষ্ট করা ঠিক নয়। বর্তমান সময়ে আমার কাজ দিয়ে ইন্ডাস্ট্রিকে কতটুকু এগিয়ে রাখতে পেরেছি, কিভাবে আরও এগিয়ে নেওয়া যায়, তা নিয়ে ভাবতে চাই। কাজ করতে চাই।

বিডি২৪লাইভ

পোস্টটি আপনার বন্ধুকে শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ
About Us | Privacy Policy | Term and Condition | Disclaimer |© All rights reserved © 2021 probashirnews.com