শাকিবকে নিয়ে মুখোমুখি বুবলী-ফারিয়া

এক নায়ককে নিয়ে সিনেমার দৃশ্যে মুখোমুখি হতে দেখা যায় দুই নায়িকাকে। গল্পের শেষে দেখা যায়, এক নায়িকা মারা গেছেন, অন্য নায়িকাকে নিয়ে সুখে-শান্তিতে বাস করছেন নায়ক। এগুলো আমাদের দেশি সিনেমার প্রচলিত গল্প। তবে এবার সিনেমার দৃশ্যে নয়, বাস্তবেই মুখোমুখি হচ্ছেন

দুই নায়িকা শবনম বুবলী ও নুসরাত ফারিয়া। তাঁদের দুজনেরই নায়ক শাকিব খান। আগামী ঈদুল ফিতরে দুই ছবি নিয়ে মুখোমুখি হচ্ছেন বুবলী-ফারিয়া। শাকিব-ফারিয়া জুটির ‘শাহেনশাহ’ চলচ্চিত্রটি আগামী ঈদুল ফিতরে মুক্তির ঘোষণা আগেই দিয়েছে ছবিটির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান শাপলা মিডিয়া। নতুন খবর হলো, শাকিব-বুবলী জুটির নতুন ছবি ‘বীর’ও আগামী ঈদুল ফিতরে মুক্তি পাবে বলে জানিয়েছেন ছবিটির সহপ্রযোজক মোহাম্মদ ইকবাল। আজ বৃহস্পতিবার (৫ ডিসেম্বর) মোহাম্মদ ইকবাল বলেন, “গত বছর ঈদুল ফিতরে আমরা এস কে ফিল্মস থেকে মুক্তি দিই শাকিব-বুবলী জুটির ‘পাসওয়ার্ড’। ছবিটি দর্শকপ্রিয়তা পায় এবং ভালো ব্যবসা করে।

এখন শাকিব-ববুলীকে নিয়ে আমরা নির্মাণ করছি ‘বীর’। ছবির শুটিং চলছে। আগামী ঈদুল ফিতরে মুক্তি দেব। এ ছবিও দর্শকপ্রিয়তা পাবে বলে আশা করি।” ‘শাহেনশাহ’ ছবির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান শাপলা মিডিয়া। ছবিতে শাকিব খানের বিপরীতে অভিনয় করেছেন এ সময়ের আলোচিত নায়িকা নুসরাত ফারিয়া। এ ছবির মধ্য দিয়ে ঢালিউডে অভিষেক হবে নবাগত রোদেলা জান্নাতের। কাজী হায়াতের ৫০ নম্বর চলচ্চিত্র ‘বীর’। এই ছবির মধ্য দিয়ে প্রথমবারের মতো কাজী হায়াতের সঙ্গে কাজ করছেন শাকিব খান। ‘বীর’ ছবিটি মোহাম্মদ ইকবালের সঙ্গে যৌথভাবে প্রযোজনা করছেন শাকিব। গত ১৫ জুলাই ‘বীর’ ছবির শুটিং শুরু হয়।

বর্তমানে শুটিং চলছে গাজীপুরের পুবাইলে। শাকিব খানের হাত ধরে চলচ্চিত্রে যাত্রা শুরু করেন শবনম বুবলী। এরই মধ্যে তাঁরা জুটি বেঁধেছেন নয়টি চলচ্চিত্রে। বেসরকারি টেলিভিশনের সংবাদ পাঠিকা থেকে ২০১৬ সালে চলচ্চিত্র শুরু করেন শবনম বুবলী। শাকিব খানের নায়িকা হয়ে ‘বসগিরি’, ‘শ্যুটার’, ‘রংবাজ’, ‘অহংকার’, ‘চিটাগাইঙ্গা পোয়া নোয়াখাইল্যা মাইয়্যা’, ‘সুপার হিরো’, ‘ক্যাপ্টেন খান’, ‘পাসওয়ার্ড’, ‘মনের মতো মানুষ পাইলাম না’—এই নয়টি চলচ্চিত্রে কাজ করেন। মুক্তির অপেক্ষায় আছে শাহীন সুমন পরিচালিত ‘একটু প্রেম দরকার’ ও কাজী হায়াৎ পরিচালিত ‘বীর’।