সংবাদ শিরোনাম :

বিশ্বকাপ নিয়ে সৌদি মন্ত্রীর মন্তব্য; পাত্তা দিচ্ছে না কাতার

রিপোর্টার
  • আপডেট সময় সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮
  • ৩ যত সময় দেখা হয়েছে

২০২২ সালের ফুটবল বিশ্বকাপ আয়োজনের দায়িত্ব কাতারের কাছ থেকে ছিনিয়ে নেয়া হতে পারে বলে সৌদি আরবের ক্রীড়ামন্ত্রী তুর্কি আল-শেখ যে মন্তব্য করেছেন তাকে বানোয়াট ও ভিত্তিহীন বলে মন্তব্য করেছে দোহা।

জার্মানিতে নিযুক্ত কাতারের রাষ্ট্রদূত সৌদ বিন আবদুর রহমান আলে-সানি নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে বলেছেন, ২০২২ সালের বিশ্বকাপ ফুটবল আয়োজন নিয়ে জার্মান ম্যাগাজিন ফোকাস যে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে তা সৌদি মন্ত্রীর ঘনিষ্ঠ সূত্রের বরাত দিয়ে করা হয়েছে। কাতারের বিরুদ্ধে এ ধরনের প্রতিবেদন প্রকাশ করার পেছনে সৌদি আরবের মদদ রয়েছে।

সৌদি আরবের ক্রীড়ামন্ত্রী তুর্কি আল-শেখ
কাতার থেকে প্রকাশিত আরবি ভাষার দৈনিক পত্রিকা আল-আরব এক প্রতিবেদনে বলেছে, গত শুক্রবার সন্ধ্যায় সাত দফা ব্রেকিং নিউজের নামে সৌদি আরবের আল-আরাবিয়া নিউজ চ্যানেল এ সংক্রান্ত ভূয়া খবর ছড়িয়েছে। জার্মান গণমাধ্যমকে সূত্র হিসেবে ব্যবহার করে আল-আরাবিয়ার খবরে বলা হয়- “২০২২ সালের ফুটবল বিশ্বকাপ আয়োজনের বিষয়ে স্বাগতিকের অধিকার হারানোর হুমকির মুখে পড়েছে কাতার।” পরে দুবাইয়ের স্কাই নিউজ আরাবিয়া টেলিভিশনও এ সংবাদ পুনঃপ্রচার করে। এর পরপরই বহু মানুষ কাতারের বিরুদ্ধে প্রচারণায় নেমে পড়ে এবং তারা সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে কাতার-বিরোধী প্রচারণা চালাতে থাকে। সৌদি নাগরিকরা এমন কথাও বলেছে যে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প কোনোমতেই কাতারকে স্বাগতিক দেশ হওয়ার সুযোগ দেবেন না।

যখন এই বিস্ফোরক খবর সম্পর্কে প্রকৃত সত্য বেরিয়ে আসে তখন সৌদি ক্রীড়ামন্ত্রী টুইটারে আলাদা একটি পোস্টে বলেছেন, “আমি চাই না ভ্রাতৃপ্রতীম কাতারের কাছ থেকে স্বাগতিক দেশ হওয়ার মর্যাদা কেড়ে নেয়া হোক। এমন ধারণা প্রচার করেছে বেশ কিছু আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম।”

পার্সটুডে/

পোস্টটি আপনার বন্ধুকে শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ
About Us | Privacy Policy | Term and Condition | Disclaimer |© All rights reserved © 2021 probashirnews.com